ইন্দিরা ও বাজপেয়ির নামে ঢাকায় সড়ক চান শাহরিয়ার কবির

Posted on by

মহান মুক্তিযুদ্ধের পরীক্ষিত দুই বন্ধু ভারতের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইন্দিরা গান্ধী ও অটল বিহারি বাজপেয়ির নামে ঢাকায় দুটি সড়কের নামকরণের প্রস্তাব করেছে একাত্তরের ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটি। মুজিববর্ষ উদযাপনকালে এ ঘোষণা দিতে সরকারের প্রতি আহ্বান জানানো হয়েছে।
শনিবার ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটিতে সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে সংগঠনের সভাপতি শাহরিয়ার কবির এ কথা জানান।


শাহরিয়ার কবির বলেন, কলকাতা ও দিলি­তে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নামে সড়ক রয়েছে। একইভাবে ভারতের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইন্দ্রিরা গান্ধী ও অটল বিহারি বাজপেয়ির অবদানের স্বীকৃতিস্বরূপ তাদের নামে ঢাকার দুটি গুরুত্বপূর্ণ রাস্তার নামকরণ করা উচিত। এজন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে আহ্বান জানাই। এ প্রস্তাব ইতিমধ্যে ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আতিকুল ইসলামের কাছে দেয়া হয়েছে বলেও জানান তিনি।


নরেন্দ্র মোদির সফর প্রসঙ্গে শাহরিয়ার কবির বলেন, ১৭ মার্চ মুজিববর্ষ পালন করবে বাংলাদেশ। অনুষ্ঠানে ভারতীয় প্রধানমন্ত্রীর অংশগ্রহণের বিষয়ের সঙ্গে দেশটির সাম্প্রতিক ঘটনার কোনো সম্পর্ক নেই। যারা একে পুঁজি করে নরেন্দ্র মোদির সফর বন্ধ করতে আন্দোলন করছেন, তারা বাংলাদেশ ও ভারতের মৈত্রীকে অসম্মান করতে চান। মুজিববর্ষের অনুষ্ঠানকে প্রশ্নবিদ্ধ করতে চান। এ সময় মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস ও চেতনাবিরোধী এসব ষড়যন্ত্র ও তৎপরতা দৃঢ়ভাবে প্রতিহত করতে সরকার ও নাগরিক সমাজের প্রতি আহ্বান জানান তিনি।


অনুষ্ঠানে সাবেক বিচারপতি এএইচ শামসুদ্দিন চৌধুরী মানিক বলেন, ভারতে যা হচ্ছে এটা তাদের নিজস্ব ব্যাপার। এর সঙ্গে ভারতের প্রধানমন্ত্রীর সফর বাতিলের দাবিতে আন্দোলন মানে বাংলাদেশের সঙ্গে চক্রান্ত করা।
সংগঠনের সহসভাপতি অধ্যাপক মুনতাসীর মামুন বলেন, দেশের প্রতিটি জেলাতে আজ বঙ্গবন্ধুর ম্যুরাল স্থাপন করা হয়েছে। এসবের চেয়ে যদি একটি করে ডিজিটাল স্কুল তৈরি করা যেত তাহলে অনেকেই উপকৃত হতেন।


শিল্পী হাশেম খান বলেন, মুজিববর্ষ নিয়ে ম্যুরাল করে অতি বাড়াবাড়ি করা হয়েছে। অতি বাড়াবাড়ি মানে জাতির পিতাকে অপমান করা। সংবাদ সম্মেলনে আরও বক্তব্য দেন শহীদ জায়া শ্যামলী নাসরিন চৌধুরী।

More News from অন্য রকম

More News

Developed by: TechLoge

x