রোহিঙ্গা বিদ্বেষ : মিয়ানমার সেনাপ্রধানের টুইটার অ্যাকাউন্ট বন্ধ

Posted on by


রোহিঙ্গাদের নিয়ে বিদ্বেষপূর্ণ মন্তব্য ও ঘৃণা ছড়ানোর অভিযোগে মিয়ানমারের সেনাপ্রধান মিং অং হ্লাইংয়ের অ্যকাউন্ট বন্ধ করে দিয়েছে টুইটার কর্তৃপক্ষ। চলতি সপ্তাহে তার অ্যাকাউন্টটি বন্ধ করা হয়েছে বলে ব্রিটিশ দৈনিক গার্ডিয়ানের এক প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে।

গার্ডিয়ানের প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে, রোহিঙ্গা নিধন অভিযানের মূলহোতা হিসেবে পরিচিত মিং অং হ্লাইং প্রায়শই টুইটারে বিভিন্নভাবে বিদ্বেষপূর্ণ মন্তব্য করে ঘৃণা ছড়াচ্ছেন এমন অভিযোগ এনেছে টুইটার কর্তৃপক্ষ।

২০১৭ সালে মিয়ানমার সেনাবাহিনী রোহিঙ্গাদের বিরুদ্ধে হত্যা, ধর্ষণ ও নৃশংস নিধন অভিযান চালায়। তাদের সেই নিধন অভিযান থেকে বাঁচতে দেশটির রাখাইন রাজ্য থেকে বাংলাদেশে পালিয়ে আসে সাত লাখেরও বেশি রোহিঙ্গা।

জাতিসংঘ মিয়ানমার সেনাবাহিনীর ভয়াবহ এই নির্যাতনের ঘটনাকে গণহত্যা হিসেবে আখ্যা দিয়েছে। ওই সময় সেনাপ্রধান মিন অং হ্লাইং দাবি করেছিলেন, তার বাহিনী এমন কিছু করেনি যা মোটেই বাড়াবাড়ি।

মিয়ানমার সেনাপ্রধান মিং অং হ্লাইং সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে রোহিঙ্গা বিদ্বেষী প্রচারণা চালানোর দায়ে অভিযুক্ত। তারই জেরে ২০১৮ সালে তার ফেসবুক অ্যাকাউন্ট বন্ধ করে দেয় ফেসবুক কর্তৃপক্ষ।

তিনি রোহিঙ্গা সম্প্রদায়কে বাঙালি বলে অভহিত করে আসছেন। তার দাবি, এসব মানুষ মিয়ানমারের নাগরিক নয় তারা বাংলাদেশি অভিবাসী। রোহিঙ্গা গণহত্যার জন্য মিয়ানমারের সামরিক বাহিনীর ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের বিচারের আওতার আনতে আহ্বান জানিয়ে আসছে জাতিসংঘ।
Jago News

Leave a Reply

More News from আন্তর্জাতিক

More News

Developed by: TechLoge

x