ব্রিকলেন মসজিদের ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত

Posted on by

লন্ডন : ব্রিকলেন মসজিদ সকল মসজিদের জন্য রোল মডেল হিসাবে কাজ করতে হবে। মসজিদের বাৎসরিক ইফতার পার্টি উপলক্ষে আলোচনা সভায় একথা বলেছেন হাইকমিশনার সাঈদা মুনা তাসনিম। এছাড়া ১৪ই মে মঙ্গলবার এনটিভিতে লাইভ ফান্ডরেইজিং আপীল নিয়ে আসছে ব্রিকলেন জামে মসজিদ।

সম্ভবত ব্রিকলেন মসজিদ একমাত্র মসজিদ যেখানে খ্রিস্টানদের চার্চ, ইহুদীদের সিনাগগ আর এখন মুসলমানরা ক্রয় করে এখানে হয়েছে মসজিদ। ঐতিহ্যবাহী ব্রিকলেন মসজিদ ইংলিশ হ্যারিটেজের লিস্টেট ২ বিল্ডিং। কমিউনিটির অন্যতম একটি প্রাচীনতম মসজিদ। এর ইতিহাস ঐতিহ্য আকৃস্ট করে বিভিন্ন দেশের অমুসলিমদের। আর তাই ব্রিকলেন মসজিদ সকল মসজিদের জন্য রোল মডেল হিসাবে কাজ করতে হবে। এমনটি বলেন আলোচনা সভার প্রধান অতিথি ব্রিটেনে নিযুক্ত বাংলাদেশ হাইকমিশনার সাঈদা মুনা তাসনিম।


বিশেষ অতিথি হিসাবে বক্তব্যকালে বেথনাল গ্রীন ও বো আসনের এমপি রুশনারা আলী বলেন ভিন্ন ভিন্ন ধর্মালম্বী মানুষ বসবাস করে ব্রিটেনে। আর ব্রিকলেন মসজিদ এর উৎকৃস্ট উদাহরণ। এর ইতিহাস ঐতিহ্য শুধু ব্রিকলেনের মধ্যে সীমাবদ্ব নয় পুরো ব্রিটেনবাসীর জন্যে মাল্টি ফেইথের একটি প্রতীক হিসাবে কাজ করছে। তিনি আরো বলেন চরমপন্ত্রীদের আক্রমনের শিকার সব সংখ্যালঘূ সম্প্রদায়। নিউজিল্যান্ডে মুসলিম, শ্রীলংকায় খ্রিস্টান বা আমেরকিায় জুইশ সব জায়গায় সংখ্যালগুরা নির্যাতিত।
টাওয়ার হ্যামলেটস মেয়র জন বিগস বলেন বাজেট কর্তনের এ সময়ে স্থানীয় কাউন্সিল থেকে বড় আকারে না হলেও ছোট ছোট গ্রান্ট প্রস্তাব করছে উপাসনালয়গুলোকে থাকছে নানা কর্মশালার ব্যবস্থা।


এ সময় বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন এনটিভি ডাইরেক্টর মোস্তফা সরোয়ার। কমিউনিটির প্রাণ ব্রিকলেন মসজিদের এনটিভিতে লাইভ ফান্ডরেইজিং আপীলে সবার সহযোগীতা কামনা করেন। এবার ১৪ই মে মঙ্গলবার এনটিভির পর্দায় লাইভ ফান্ডরেইজ আপীল অনুস্টিত হচ্ছে।

প্রতি বছরের মতো এ বছরও ইফতার মাহফিলের পূর্বে আলোচনা সভায় যোগ দিয়েছেন কমিউনিটির বিশিষ্ঠজন। মসজিদ ট্রাস্ট্রের ভাইস প্রেসিডেন্ট হরমুজ আলীর পরিচালনায় এতে সভাপতিত্ব করেন মসজিদ ট্রাস্টের প্রেসিডেন্ট আলহাজ্ব সাজ্জাদ মিয়া।
প্রেসিডেন্ট তার বক্তব্যে আগত সবাইর প্রতি ধন্যবাদ ঞ্জাপন করে বলেন এটি ব্রিটিশ সরকারের একটি লিস্টেট বিল্ডিং। বৃহৎ এ বিল্ডিংয়ের রক্ষণাবেক্ষণ খরচ তুলনামূলকভাবে অনেক বেশী। আর তাই বিশাল পরিমাণ অর্থের উৎস মসজিদের মুসল্লিদের দান।
মসজিদের খরজে হাছানা বাবদ এবং মেরামতের জন্য প্রায় দুইশত সত্তর হাজার পাউন্ডের প্রয়োজন। এতে সকলের উদাত্ত সহযোগীতার আহবান জানান তিনি।

টাওয়ার হ্যামলেটস বারার ব্রিকলেনের জমজমাট ব্যবসা বানিজ্য যেমন কমে এসেছে তার সাথে প্রতি বছর
স্তানীয় মানুষেরা এ বারা থেকে চলে যাচ্ছেন। এর দরুন ব্যবসা বানিজ্য শুধু নয় ব্রিকলেনে অবস্থিত ব্রিকলেন জামে মসজিদের অনেক মুসল্লী চলে গেছেন অন্য বরায়। ঐতিহ্যবাহী ব্রিকলেন মসজিদ ১৯৭৬ সাল থেকেই মুসল্লীদের দানে পরিচালিত হয়ে আসছে। তবে বর্তমান বাস্তবতায় ইংলিশ হ্যারিটেজের লিস্টেট টু বিল্ডিং ব্রিকলেন জামে মসজিদের প্রয়োজন হাজার হাজার পাউন্ড।
ইফতারের পূর্বে বিশ্বের নিপিড়ীত, অবহেলিত মানুষদের জন্য বিশেষ মোনাজাত করা হয়।

Leave a Reply

More News from কমিউনিটি

More News

Developed by: TechLoge

x