ম্যারাডোনাকে নিয়ে একটি পূর্ণ্যদৈর্ঘ্য প্রামাণ্য চলচ্চিত্র ২৪ সেপ্টেম্বর মুক্তি দেয়া হবে

Posted on by

ফুটবলকে তিনি আবেগের বাহন করে তুলেছেন। ভক্তরা তাকে ফুটবলের ঈশ্বর বলে সম্মান করে। তিনি ফুটবলকে শিল্পে পরিণত করেছিলেন। তিনি ফুটবলকে করে নিয়েছিলেন বিপ্লবের হাতিয়ার। তিনি শতাব্দীর সেরা অন্যতম ফুটবলার।

Newslife24.com

তিনি দিয়েগো ম্যারাডোনা। আর্জেন্টিনার হয়ে ১০ নাম্বার জার্সিতে মাতিয়েছেন ফুটবল দুনিয়া। কিংবদন্তি এই আর্জেন্টাইন ফুটবলারের কোটি কোটি ভক্ত সবসময়ই অপেক্ষায় থাকেন ম্যারাডোনার নানা রকম খবর জানার জন্য।

এ কথাও তাদের অজানা নয় যে, ম্যারাডোনাকে নিয়ে একটি পূর্ণ্যদৈর্ঘ্য প্রামাণ্য চলচ্চিত্র নির্মাণ করা হয়েছে। ‘দিয়েগো ম্যারাডোনা’ নামের এই ছবিটি আসছে ২৪ সেপ্টেম্বর মুক্তি দেয়া হবে। নির্বাহী প্রযোজনার পাশাপাশি এই ছবি পরিচালনা করেছেন ভারতীয় বংশোদ্ভূত ব্রিটিশ নির্মাতা আসিফ কাপাডিয়া।

তিনি গণমাধ্যমে জানিয়েছেন, প্রামাণ্যচিত্রটি এ বছর কান চলচ্চিত্র উৎসবে বিশ্ব প্রিমিয়ার হবে। এরপর মুক্তি পাবে যুক্তরাষ্ট্রের অল্পসংখ্যক প্রেক্ষাগৃহে। পাশাপাশি ছবিটি দেখতে পাওয়া যাবে এইচবিও চ্যানেলেও। ছবিটির স্ট্রিমিং ও টেলিভিশন প্রচার স্বত্ব কিনে নিয়েছে যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক কেবল নেটওয়ার্ক এইচবিও।

ম্যারাডোনার জীবনের নানা বিচিত্র অভিজ্ঞতা আর চড়াই-উৎরাইয়ের গল্প ফুটিয়ে তোলা হয়েছে প্রামাণ্য চলচ্চিত্রটিতে। এক সাক্ষাৎকারে নির্মাতা কাপাডিয়া বলেন, ‘কোটি কোটি মানুষ ম্যারাডোনার জন্য হাসে ও কাঁদে। তাকে দেবতার মতো ভালোবাসে। যারা ফুটবল ভালোবাসে না এমন অনেক মানুষও ম্যারাডোনাকে ভালোবাসে। একজন মানুষকে ঘিরে মানুষের এই ভালোবাসা ও সম্মান পৃথিবীতে বিরল।

আমি মুগ্ধ হয়েছি ম্যারাডোনার জীবনী পড়ে। তার জার্নি অসাধারণ। যেখানেই তিনি যে সময় পার করে এসেছেন, সেগুলোর সবকিছুতেই ছিল অবিশ্বাস্য প্রতিভা ও নাটকীয়তার সাক্ষর। তিনি একজন সত্যিকারের নায়ক। সেজন্যই তার জীবনটাকে সবার সামনে অনুপ্রেরণা হিসেবে তুলে ধরতে চেয়েছি।’

এদিকে এইচবিওর কর্মকর্তা পিটার নেলসন উচ্ছ্বসিত ছবিটির প্রচার স্বত্ব কিনতে পেরে। তিনি জানিয়েছেন, ‘সর্বকালের সেরা ফুটবলার দিয়েগো ম্যারাডোনা। তার জীবনীকে আসিফ কাপাডিয়া দারুণভাবে ছবিতে তুলে ধরেছেন। এতে রয়েছে হাত দিয়ে গোল দেয়ার সেই বহুল আলোচিত ও বিতর্কিত দৃশ্যসহ অনেক কিছু। দর্শকদের কাছে ছবিটি পৌঁছে দেয়ার জন্য অধীর আগ্রহ নিয়ে অপেক্ষা করছি আমরা।’

নিশ্চিত হওয়া গেছে, ম্যারাডোনার জীবনী অবলম্বনে নির্মিত প্রামাণ্যচিত্রের প্রিমিয়ার হবে কানের আউট অব কম্পিটিশন বিভাগে। ৫০০ ঘণ্টারও বেশি অপ্রকাশিত ফুটেজ থেকে বাছাই করে এটি বানিয়েছেন ভারতীয় বংশোদ্ভূত ব্রিটিশ এ নির্মাতা। আসিফ নির্মিত এমি ওয়াইনহাউজের প্রামাণ্যচিত্রও প্রদর্শিত হয়েছিল কানের আসরে।
Jagonews

Leave a Reply

Developed by: TechLoge

x