নেতাকর্মীদের হতাশ না হওয়ার আহ্বান ফখরুলের

Posted on by

ইউএনএন বিডি নিউজঃ খালেদা জিয়া কারান্তরীণ হওয়ার পর দলটির নেতারা আরো বেশি ঐক্যবদ্ধ হয়েছে, এ দাবি করে দলের কর্মী-সমর্থকদের হতাশ না হওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

শনিবার বিকেলে রাজধানীর জাতীয় প্রেসক্লাবে এক অনুষ্ঠানে তিনি এ আহ্বান জানান।বিএনপি নেত্রীর মুক্তি আন্দোলনে অন্যদের সঙ্গে পেশাজীবীদেরও কার্যকর ভূমিকা চেয়েছেন মির্জা ফখরুল।
নেতাকর্মীদের উদ্দেশে মির্জা ফখরুল বলেন, ‘আজকে হতাশ হওয়ার কিছুই নেই। এখন হয়নি, সামনে হবে। এটা তো বিজ্ঞান। হতেই হবে। আমরা বিএনপি আগের চেয়ে আরো বেশি ঐক্যবদ্ধ। আমাদের মাঝে কোনো বিভেদ নেই। ঐক্যবদ্ধভাবেই আমাদের দলের নেত্রীর জন্য শান্তিপূর্ণ আন্দোলন করে আসছি। আজকে এই আন্দোলনে শুধু বিএনপি নয়, পেশাজীবীদেরকেও ভূমিকা রাখতে হবে, যারা বিগত আন্দোলনেও গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখেছেন।’

সরকারকে ফ্যাসিস্ট আখ্যা দিয়ে তাদের হটাতে জাতীয় ঐক্য গড়ে তোলারও আহ্বান জানান বিএনপির মহাসচিব।তিনি বলেন, ‘পাকিস্তান আমলে আইয়ুব খানের বিরুদ্ধে ১২ বছর আন্দোলন হয়েছে। স্বৈরাচার এরশাদ সরকারের বিরুদ্ধে দীর্ঘ ৯ বছর আন্দোলন হয়েছে। সে সময় একটি জাতীয় ঐক্য প্রতিষ্ঠা হয়েছিল বলেই তাদেরকে ক্ষমতা থেকে নামানো গেছে। আজকেও জাতীয় ঐক্য গড়ে তুলতে হবে।বিএনপির চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার নিঃশর্ত মুক্তি ও গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারের দাবিতে’এই প্রতিবাদ সমাবেশের আয়োজন করে ‘সম্মিলিত পেশাজীবী সংগ্রাম পরিষদ’।

বিএনপি ভেবেচিন্তে আন্দোলন করছে, জানিয়ে মির্জা ফখরুল বলেন, ‘বিএনপি বিপ্লবী দল নয়। বিএনপি উদার গণতান্ত্রিক রাজনৈতিক দল। নির্বাচনের মাধ্যমেই রাষ্ট্রক্ষমতায় যেতে চায় বিএনপি। আমরা দেশনেত্রী খালেদা জিয়ার মুক্তির জন্য শান্তিপূর্ণভাবে কর্মসূচি পালন করে সামনে এগিয়ে যেতে চেষ্টা করছি।’

বিএনপি মহাসচিব বলেন, ‘আজকে দেশের মানুষ এই সরকারের কর্মকাণ্ডে অতীষ্ঠ। মানুষের কোনো নিরাপত্তা নেই। কথা বলার স্বাধীনতা নেই। অর্থনৈতিক নিরারপত্তা নেই। এ অবস্থা চলতে পারে না। আজকে দেশের মানুষ পরিবর্তন চায়।’

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকদের সাদা দলের আহ্বায়ক অধ্যাপক ড. আখতার হোসেন খানের সভাপতিত্বে সমাবেশে অন্যদের মধ্যে আরো বক্তব্য রাখেন আয়োজক সংগঠনের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান, বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান শওকত মাহমুদ, ডা. এ জেড এম জাহিদ হোসেন, বিএনপির চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা ডা. ফরহাদ হালিম ডোনার, ড. তাজমেরী এস ইসলাম, শিক্ষক কর্মচারী ঐক্যজোটের চেয়ারম্যান সেলিম ভুইয়া, বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের (বিএফইউজে) মহাসচিব এম আবদুল্লাহ, ঢাবি সাদা দলের যুগ্ম আহ্বায়ক অধ্যাপক ড. মোর্শেদ হাসান খান, অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ ছিদ্দিকুর রহমান খান, ড. আবু মূসা আরিফ বিল্লাহ প্রমুখ।

বিএনপির সহ প্রচার সম্পাদক কৃষিবিদ শামীমুর রহমান শামীমের পরিচালনায় সভায় ঢাবির শিক্ষকদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন অধ্যাপক ড. এম ফরিদ আহমেদ, অধ্যাপক জাকারিয়া, ড. আশরাফুল ইসলাম চৌধুরী, ড. তাহমিনা আক্তার টফি, ড. মাহফুজুল হক, ড. আল মোজাদ্দেদী আলফেছানী, ইস্রাফিল প্রামানিক রতন, ড. দেবাশীষ পাল, অধ্যাপক এ বি এম শহিদুল ইসলাম, অধ্যাপক সিরাজুল ইসলাম, ড. মোহাম্মদ আলী জিন্নাহ, অধ্যাপক আলমগীর হোসেন, অধ্যাপক ড. আবুল কালাম আজাদ, অধ্যাপক গোলাম রব্বানী, অধ্যাপক ড. এমরান কাইয়ুম, অধ্যাপক আজহারুল ইসলাম, অধ্যাপক মো: জসিম উদ্দিন প্রমুখ।

More News from বাংলাদেশ

More News

Developed by: TechLoge

x