গ্রেপ্তারের ৬ দিন পর কারাগারে ছাত্রদল নেতার মৃত্যু

Posted on by

ইউএনএন বিডি নিউজঃ ঢাকা মহানগর উত্তর ছাত্রদলের সহসভাপতি ও তেজজাঁও থানা ছাত্রদলের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি জাকির হোসেন মিলন মারা গেছেন।

আজ সোমবার ভোরে কাশিমপুর কেন্দ্রীয় কারাগারে বন্দি অবস্থায় মারা যান মিলন।গত ৬ মার্চ জাতীয় প্রেসক্লাবে বিএনপির উদ্যোগে আয়োজিত মানববন্ধন থেকে ফেরার পথে শাহবাগ থানা পুলিশ গ্রেপ্তার করে জাকির হোসেন মিলনকে। এরপর তাঁকে তিনদিনের রিমান্ডে নেয় পুলিশ। রিমান্ড শেষে গত শনিবার তাঁকে আদালতে হাজির করা হলে বিচারক তাঁকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন। সেদিন থেকে কারাগারেই বন্দি ছিলেন তিনি।পরে আজ সকালে কারাগারে অসুস্থ হয়ে পড়লে জাকির হোসেন মিলনকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়া হলে সকাল সাড়ে ৮টায় চিকিৎসকরা তাঁকে মৃত ঘোষণা করেন।

শাহবাগ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল হাসান বলেন, রিমান্ডে জিজ্ঞাসাবাদের পর সুস্থ অবস্থায় তাঁকে আদালতে পাঠানো হয়েছে। তার ওপর কোনো নির্যাতন চালানো হয়নি বলেও দাবি করেন তিনি।ছাত্রদল কেন্দ্রীয় সংসদের সহসভাপতি নাজমুল হাসান নাজমুল হাসান বলেন, ‘একজন তরতাজা মানুষকে ৬ তারিখ গ্রেপ্তার করা হলো। ৮ তারিখ তিনদিনের রিমান্ড শেষে অসুস্থ অবস্থায় কারাগারে পাঠানো হলে তাঁর মৃত্যু হয়। এর মাধ্যমে প্রমাণিত হয় রিমান্ডে অমানসিক নির্যাতনেই ছাত্রদল নেতা জাকির হোসেনের মৃত্যু হয়েছে।’

অন্যদিকে ছাত্রদলেরর ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মামুনুর রশিদ মামুন বলেন, ‘ছাত্রদল নেতা জাকির হোসেন মিলনকে রিমান্ডের নামে নির্যাতত করে হত্যা করা হয়েছে। আমরা এই ঘটনার বিচার বিভাগীয় তদন্ত দাবি করছি।’

এদিকে পুলিশের নির্মম নির্যাতনে গুরুতর আহত জাকির হোসেন মিলনকে কারাগারে চিকিৎসা না দিয়ে মৃত্যুর মুখে ঠেলে দেওয়া হয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। তিনি মিলনের মৃত্যুতে গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছেন।

মির্জা ফখরুল বলেন, ‘বর্তমান শাসকগোষ্ঠী প্রতিহিংসার রাজনীতিতে এতটাই বেপরোয়া হয়ে উঠেছে যে, তারা ন্যূনতম মানবিক বোধটুকুও বিসর্জন দিয়ে দিয়েছে।’

More News from বাংলাদেশ

More News

Developed by: TechLoge

x