ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রদল কর্মীকে ছাত্রলীগের মারধর

Posted on by

ইউএনএন বিডি নিউজঃ ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে এক ছাত্রদল কর্মীকে মারধর করেছে ছাত্রলীগ। আহত মিজানুর রহমান নাহিয়ান কুষ্টিয়া সদর হাসপাতালে ভর্তি। বুধবার দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে কেন্দ্রীয় লাইব্রেরীর সামনে তাকে দুই দফায় মারধর করা হয়।প্রত্যক্ষদর্শী সুত্রে, আইন বিভাগের (২০১৫-১৬) ছাত্র নাহিয়ান ক্লাসের ফাঁকে মীর মশাররফ হোসেন ভবনের করিডোরে দাড়িয়ে ছিল। এসময় ছাত্রলীগ কর্মী জুবায়ের, রকিব, ফাহিম আশিকসহ বেশ কয়েকজন এসে নাহিয়ানকে মারধর শুরু করে। এ সময় পুরো ভবনে ও নবীন শিক্ষার্থীদের মাঝে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। নাহিয়ান সেখান থেকে দৌড়ে পালিয়ে কেন্দ্রীয় লাইব্রেরির সামনে গেলে পিছু নেয় ছাত্রলীগ কর্মীরা।সেখানে গাছের ডাল দিয়ে আবারো ব্যাপক মারধর করা হয়। এ সময় আইন বিভাগের এক শিক্ষক এসে তাকে উদ্ধার করেন। গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে কুষ্টিয়া সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়। আহত নাহিয়ান ছাত্রদলের রাজনীতির সাথে জড়িত বলে জানা গেছে।শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি শাহিনুর রহমান বলেন, এক শিক্ষার্থীকে মারধরের কথা শুনিছে। তবে কি কারণে মেরেছে তা জানি না।
শাখা ছাত্রদলের দপ্তর সম্পাদক শাহেদ আহম্মেদ এক প্রতিবাদলীপিতে বলেন, শিক্ষার্থীদের স্বাভাবিক ক্লাস-পরীক্ষায় দখলদার ছাত্রলীগ কর্মীরা বাঁধা হয়ে দাড়িয়েছে। অকারনে সাধারণ শিক্ষার্থীদেরকে মারধর করা হচ্ছে। আমরা এ হামলার বিচার দাবি করছি। ক্যাম্পাসে শিক্ষার সুষ্ঠু পরিবেশ বজায় রাখতে প্রশাসনের দৃষ্টি আকর্ষণ করছি।সহকারী প্রক্টর ড. সাজ্জাদ হোসেন বলেন, ‘ঘটনাস্থলে গিয়ে কাউকে পাইনি। পরে খোঁজ নিয়ে জানলাম নাহিয়ানকে কুষ্টিয়া সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। অভিযোগ পেলে পরবর্তী ব্যাবস্থা নেয়া হবে।

More News from বাংলাদেশ

More News

Developed by: TechLoge

x