ব্যক্তিগত হাজিরা অব্যাহতি পেলেও আদালতে যাবেন খালেদা

Posted on by

ইউএনএন বিডি নিউজঃ খালেদা জিয়ার মা বেগম তৈয়বা মজুমদারের মৃত্যুবার্ষিকী বৃহস্পতিবার। এদিন আদালত ব্যক্তিগত হাজিরা থেকে অব্যাহতি দেয়। কিন্তু মামলার কার্যক্রম মুলতবি না করায় খালেদা জিয়া এদিন জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতির মামলায় আদালতে যাবেন।

বুধবার রাজধানীর বকশীবাজারে অস্থায়ী বিশেষ জজ আদালতে বেলা ১১টা ২৩ মিনিটে খালেদা জিয়া উপস্থিত হন। তার আসার আগেই বেলা ১১টার ১৮ মিনিটে বিচারক ড. মো. আখতারুজ্জামন এজলাসে ওঠে মামলার কার্যক্রম শুরু করেন।

আসামি ব্যবসায়ী শরফুদ্দিন আহমেদের পক্ষে তার আইনজীবী আহসান উল্লাহ যুক্তি উপস্থাপন শুরু করেন। খালেদা জিয়া আদালতে প্রবেশের পরও তা অব্যাহত থাকে। বেলা ১২টা ৩৭ মিনিট পর্যন্ত ওই আইনজীবী যুক্তি উপস্থাপন করার পর বিচারক বিরতিতে যান। বেলা ১টা ২০ মিনিটে বিচারক পুনরায় এজলাসে ওঠার পর আইনজীবী বেলা ২টা ৫৩ মিনিট পর্যন্ত যুক্তি উপস্থাপনের পর মুলতবি চান। আদালত তা মঞ্জুর করেন।

যুক্তি উপস্থাপন শেষ হওয়ার পর আইনজীবী আব্দুর রেজ্জাক খান ও সানাউল্লাহ মিয়া বৃহস্পতিবার খালেদা জিয়ার মায়ের মৃত্যুবার্ষিকীর জন্য ওইদিন আদালত মুলতবি প্রার্থনা করেন। বিচারক এ বিষয়ে দুদকের আইনজীবীর বক্তব্য জানতে চাইলে প্রসিকিউটর মোশারফ হোসেন কাজল বলেন, যেহেতু মৃত্যুবার্ষিকী একটি ধর্মীয় বিষয় তাই তাকে ওইদিন ব্যক্তিগত হাজিরা থেকে অব্যাহতি দিতে পারেন। তবে আদালত মুলতবির বিষয়ে আমাদের অবজেকশন আছে।শুনানি শেষে বিচারক বৃহস্পতিবার পর্যন্ত খালেদা জিয়ার জামিন বর্ধিত করে ওইদিন ব্যক্তিগত হাজিরা থেকে তাকে অব্যাহতি প্রদান করেন। তবে আদালত মুলতবির আবেদন নামঞ্জুর করে বৃহস্পতিবার অন্যান্য আসামিদের পক্ষে যুক্তি উপস্থাপন হবে বলে আদেশ দেন।আদেশের পর খালেদা জিয়ার আইনজীবীরা বিচারককে জানান, যেহেতু আপনি (বিচারক) আদালত মুলতবি করবেন না, তাই ম্যাডাম (খালেদা জিয়া) ব্যক্তিগত হাজিরা থেকে অব্যাহতি নিবেন না। তিনি বৃহস্পতিবারও আদালতে উপস্থিত থাকবেন।

এদিকে এদিন শরফুদ্দিন আহমেদের পক্ষে তার আইনজীবী আহসান উল্লাহ যুক্তিতর্কে বলেন, মামলার তদন্ত কর্মকর্তা হারুন অর রশিদ নিজেই বলেছেন, জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট প্রতিষ্ঠান ট্রাস্ট আইন অনুযায়ী হয়েছে এবং ডিড হয়েছে। ট্রাস্টের নামে যে জমি কেনা হয়েছে, তাও প্রতিষ্ঠিত।তিনি বলেন, এখান থেকে একটি টাকাও আত্মসাৎ করা হয়নি; বরং দুই কোটি টাকা এখন ব্যাংকে বৃদ্ধি পেয়ে ছয় কোটি টাকা হয়েছে।এ নিয়ে কোনো মামলা হতে পারে না উল্লেখ এ আইনজীবী আরো বলেন, হাওয়ার ওপর এই মামলা হয়েছে। আমি আশা করি, এই মামলার সব আসামি খালাস পাবেন।এর আগে গত মঙ্গলবার জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় খালেদার পক্ষে যুক্তি উপস্থাপন শেষ হয়। গত ২০, ২১, ২৬, ২৭, ২৮ ডিসেম্বর এবং ৩ ও ৪ জানুয়ারি অরফানেজ ট্রাস্ট মামলায় খালেদা জিয়ার পক্ষে যুক্তি তুলে ধরেন তার আইনজীবীরা।

More News from বাংলাদেশ

More News

Developed by: TechLoge

x